শ্রীবরদীতে ব্যালট পেপার উদ্ধার, পুলিশ হেফাজতে প্রিজাইডিং অফিসার

219

শ্রীবরদী প্রতিনিধিঃ শ্রীবরদী উপজেলার ৯ ইউনিয়নের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে দুইদিন হলো। দুইদিন পর ঘটলো চাঞ্চল্যকর ঘটনা। রানীশিমুল ইউনিয়নের একটি ভোটকেন্দ্র থেকে উদ্ধার করা হলো সীল যুক্ত ব্যালট পেপার। মঙ্গলবার দুপুরে ইউনিয়নের বাঘহাতা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্র থেকে কালো কাপড়ে মোরানো এই ব্যালট পেপার উদ্ধার করা হয়। ব্যালট পেপারগুলো পাওয়া যায় বিদ্যালয়ের অফিস কক্ষে। এই ঘটনায় স্থানীয় এলাকাবাসী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে পুনরায় নির্বাচনের দাবিতে মিছিল করেছে। পুলিশ হেফাজতে নেয়া কেন্দ্রটির প্রিজাইডিং অফিসার বালুরচর হাইস্কুল এন্ড কলেজের সহকারী প্রধান শিক্ষক ছাবেদ আলীকে এবং উদ্ধারকৃত ব্যালট পেপার বস্তাবন্দি করে সীলগালা করা হয়েছে ।

এসময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার নিলুফা আক্তার, জেলা ডিবির ওসি রেজাউল করিম, থানা অফিসার ইনচার্জ বিপ্লব কুমার বিশ্বাস, উপজেলা নির্বাচন অফিসার এন এম সাজ্জিল সাদিকসহ অন্যান্নরা। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়,গত ২৬ ডিসেম্বর নির্বাচন শেষে প্রিজাইডিং অফিসার ফলাফল সীট দিয়ে চলে যায়। পরে ২৮ ডিসেম্বর ওই বিদ্যালয়ের দপ্তরী কাম নৈশ প্রহরী মাখন মিয়া অফিস কক্ষে গেলে ব্যালেট পেপার দেখে প্রিজাইডিং অফিসারকে খবর দেয়। প্রিজাইডিং অফিসার ব্যালট নিতে আসলে এলাকাবাসী তাকে বিদ্যালয় কক্ষে আটক করে রাখে।

পরবর্তীতে খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার, থানা অফিসার ইনচার্জ, উপজেলা নির্বাচন অফিসার, সংশ্লিষ্ট ইউনিয়নের রিটার্নিং অফিসার ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয় এবং এই ঘটনায় প্রিজাইডিং অফিসার ছাবেদ আলীকে থানা হেফাজতে নেওয়া হয় এবং উদ্ধারকৃত ব্যালেট পেপার বস্তাবন্দি করে সীল গালা করা হয়। শ্রীবরদীর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নিলুফা আক্তার বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে প্রিজাইডিং অফিসার ও ব্যালেট পেপার উদ্ধার করা হয়েছে। নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।