নকলায় গরুবাহী ট্রাক খাদে পড়ে ১৩টি গরুসহ ও নির্মানাধীন কালভার্টের পাহাড়াদার নিহত: আহত ২

164

নকলা, শেরপুর: শেরপুরের নকলায় গরুবাহী ট্রাক দুর্ঘটনায় ১৩টি গরুসহ ও নির্মানাধীন কালভার্টের পাহাড়াদার ছোরহাব আলী নামের এক ব্যাক্তি নিহত হয়েছেন। এ দুর্ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও দুইজন। মঙ্গলবার মধ্য রাতে ঢাকা-শেরপুর মহাসড়কের নকলা উপজেলার কুর্শাবাদাগৌর এলাকা এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত ছোরহাব আলী একই এলাকার মৃত. সৈয়দ আলীর পুত্র। আহতরা হলেন ট্রাক চালক মোখলেছ মিয়া ও গরু ব্যবসায়ী নবী হোসেন।

স্থানীয়সূত্র ও পুলিশ জানায়, কুড়িগ্রামের রৌমারী থেকে ৩২টি গরু ক্রয় করে ব্যবসায়ীরা ট্রাকে করে কিশোরগঞ্জে যাওয়ার পথে ময়মনসিংহ-শেরপুর আঞ্চলিক সড়কের নকলা উপজেলার কুর্শবাদাগৈর এলাকায় নিয়ন্ত্রন হারিয়ে ট্রাকটি নির্মানাধীন কালভার্টের খাদে পড়ে যায়। নির্মানাধীন ব্রিজের পাহাড়াদার ছোরহাব মিয়া ঘটনাস্থলেই প্রান হারান। এতে গরুর ট্রাকের সামনের অংশ দুমড়ে-মুচড়ে যায়। ট্রাকে থাকা ৩২টি গরুর মধ্যে ১৩টি গরু ঘটনাস্থলেই মারা যায়। বাকী গরুগুলো উদ্ধার করে নকলা থানা হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। সাথে সাথে ফায়ার সার্ভিস সংবাদ পেয়ে ট্রাকের দরজা কেটে চালক মোখলেসকে উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ও গরু ব্যবসায়ী নবী হোসেনকে নকলা হাসপাতালে প্রেরন করেছেন। তবে স্থানীয়দের দাবী নির্মানধীন কালভার্টের সামনে কোন রোড সাইন বা ব্যারিকেড না থাকায় এই দুর্ঘটনাটি ঘটেছে।